১৯ সেপ্টেম্বর২০১৮, ৪ আশ্বিন১৪২৫
1024x90-ad-apnar

সৌদি নারীর সাথে নাস্তা করায় মিশরীয় ব্যক্তি গ্রেপ্তার

Tuesday, 11/09/2018 @ 11:24 am

আন্তর্জাতিক ডেস্ক  ::    একজন সৌদি নারীর সঙ্গে সকালের নাস্তা করার অপরাধে দেশটির কর্তৃপক্ষ এক মিশরীয় ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করেছে। টুইটারে ওই ব্যক্তির পোস্ট করা এক ভিডিওতে দেখা গেছে, তিনি পুরো মুখ ঢাকা এক নারীর পাশে বসে সকালের নাস্তা সারছেন। খবর বিবিসির। সৌদির শ্রম ও সামাজিক উন্নয়ন মন্ত্রণালয় ওই ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করেছে।

ওই মিশরীয়র বিরুদ্ধে বেশ কয়েকটি অভিযোগ এনেছে তারা। এরমধ্যে রয়েছে, কেবল সৌদিদের জন্য বরাদ্দকৃত পদে চাকরির করার মতো অভিযোগ। ৩০ সেকেন্ডের ভিডিওতে দেখা গেছে, সকালের নাস্তা খাওয়ার সময় মিশরীয় ব্যক্তি এবং ওই সৌদি নারী ঠাট্টা-তামাশা করছে।

তবে ভিডিও’র এক পর্যায়ে দেখা যায়, ওই নারী মিশরীয় ব্যক্তিকে খাইয়ে দিচ্ছেন। আর ভিডিও’র ওই অংশটিই আলোচনা-সমালোচনার জন্ম দিয়েছে। অনেক সৌদিয়ান সোশ্যাল মিডিয়া ওই মিশরীয় ব্যক্তি ও নারীটির সমালোচনা করেছে। তবে অনেকেই অবাক হয়েছেন, ওই নারীর পরিবর্তে কেন মিশরীয় যুবককে সাজা দেয়া হলো।

আবার অনেক সৌদিয়ান লিঙ্গ সমতার কথা বলেছেন। তাদের ভাষায় সহকর্মীদের মধ্যে ঠাট্টা-তামাশা বা একসঙ্গে খাওয়া-দাওয়ার মতো স্বাভাবিক মানবিক সম্পর্ক স্থাপন করতে দেয়া উচিত। এদিকে সৌদি কর্তৃপক্ষের এমন সিদ্ধান্তে অনেক মিশরীয়ই অবাক হয়েছেন। অনেকে এটির সমালোচনাও করেছেন।

সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহারকারী এক মিশরীয় বলেন, সৌদি পুরুষদের ‘ভঙ্গুর অহংবোধের’ কারণেই ওই যুবকের সঙ্গে এমন আচরণ করা হয়েছে। সৌদি আরবে কর্মক্ষেত্র বা ম্যাকডোনাল্ডস এবং স্টারবাকসের মতো খাবার দোকানে রক্ত সম্পর্কীয় নন এমন নারী-পুরুষদের আলাদা বসতে হয়। সৌদি আরবে নারীদের বাইরে চলাফেরার ক্ষেত্রে ব্যাপক বাধ্যবাধকতা রয়েছে। পুরুষ অভিভাবক ছাড়া অধিকাংশ কর্মকাণ্ডেরই অনুমতি নেই সৌদি নারীদের। সাধারণত বাবা বা স্বামী অথবা ভাই বা ছেলেকে সঙ্গে নিয়েই অধিকাংশ কাজ করতে হয় তাদের।
চট্টগ্রামনিউজ/এসএ