১৭ ডিসেম্বর২০১৭, ৩ পৌষ১৪২৪
1024x90-ad-apnar

দাঁত ধবধবে সাদা করার উপায়

Saturday, 16/09/2017 @ 5:34 pm

দাঁত ধবধবে সাদা করার উপায়

নিউজ ডেস্ক: সাদা আর ঝকঝকে দাঁত কে না চান! কিন্তু নানা কারণে দাঁতে হলুদ দাগ দেখা দিতে পারে। তা থেকে মুক্তি পেতে সুন্দর দাঁত ও আকর্ষণীয় হাসির জন্য ডেন্টিস্টের কাছে যেতে হয়। কিন্তু তা না করে আপনি ঘরে বসেই প্রাকৃতিক উপায়ে দাঁতের যত্ন নিতে পারেন; দাঁতকে করতে পারেন মুক্তার মতো ধবধবে সাদা। আসুন তাহলে জেনে নেই প্রাকৃতিক সেই উপায়গুলো:

কলার খোসা:
কলার অনেক পুষ্টিগুণ রয়েছে। তবে অনেকেই হয়তো জানে না কলার খোসাও কম উপকারি নয়। দাঁত পরিস্কার ও সাদা করতে কলার খোসার কোনো বিকল্প নেই। তাই এরপর থেকে কলার খোসা ফেলে দেয়ার আগে একবার হলেও ভেবে দেখবেন। সপ্তাহে কমপক্ষে ২ দিন কলার খোসা দিয়ে দাঁত ঘষুন। কলার খোসার মধ্যে আছে পটাসিয়াম, মিনারেল, ম্যাগনিসিয়াম যা দাঁতকে করে তোলে সুন্দর। এতে নিঃশ্বাসের সঙ্গে আসে সুঘ্রাণ। কলার খোসার মতো দাঁতের জন্য কমলার খোসাও অনেক উপকারি।

স্ট্রবেরি:
আপনি কি জানেন টকটকে লাল এই ফলটিতে দাঁত সাদা করার অনেক উপাদান আছে? প্রতিদিন একটি স্ট্রবেরি নিয়ে ২ থেকে ৩ মিনিট দাঁতে ঘষতে হবে এবং ভালো করে দাঁত ধুয়ে ফেলতে হবে। স্ট্রবেরিতে আছে প্রাকৃতিক ম্যালিক এসিড যা দাঁতের জন্য খুব উপকারি। তা দাঁতকে করে তোলে উজ্জ্বল। শুধু তাই নয় স্ট্রবেরিতে থাকা এই এসিড মুখ ও দাঁতের ভিতর জমে থাকা জীবাণুকে ধ্বংস করে।

গাজর:
তাজা ও কচি গাজর দাঁতের প্রাকৃতিক টুথপেস্ট হিসেবে খ্যাত। রোজ একটি গাজর খেলে দাঁতের গোড়া হয় মজবুত, দাঁতের ক্ষয় রোগ দুর হয়। গাজরের পাশাপাশি আপেলে ও আপেলের খোসাও দাঁত মজবুত করতে সাহায্য করে।

স্ট্র ব্যবহার করুন:
অতিরিক্ত ঠান্ডা বা গরম কোনো পানীয় দাঁতের জন্য মারাত্মক ক্ষতিকর। তাই অতিরিক্ত ঠান্ডা বা গরম কিছু খাওয়া উচিৎ নয়। একটু নরমাল হওয়া পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হবে। আবার ঠান্ডা পানীয় সরাসরি না খেয়ে স্ট্র দিয়ে খাওয়া উচিৎ।

ধূমপান বন্ধ করুন:
দাঁত ও মাড়ির বিভিন্ন ধরণের রোগের একটি প্রধান কারণ হলো ধূমপান। ধূমপানের ফলে দাঁতে হলদেটে দাগ পড়ে যায়। ধীরে ধরে দাঁত ক্ষয় হতে শুরু করে। তাই দাঁতের যাবতীয় সমস্যা থেকে রেহাই পেতে ধূমপান বন্ধ করতে হবে।