জেএসসিতে পাসের হার ৮৫.২৮ শতাংশ, পিইসিতে ৯৭.৬০

জেএসসিতে পাসের হার ৮৫.২৮ শতাংশ, পিইসিতে ৯৭.৬০

নিউজ ডেস্ক: অষ্টম শ্রেণির জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট (জেএসসি) পরীক্ষায় ৮৫ দশমিক ২৮ শতাংশ এবং জুনিয়র দাখিল সার্টিফিকেট (জেডিসি) পরীক্ষায় ৮৯ দশমিক ০৪ শতাংশ শিক্ষার্থী পাস করেছেন। দুই পরীক্ষা মিলিয়ে পাসের হার ৮৫ দশমিক ৮৩ শতাংশ।

অন্যদিকে পঞ্চম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের প্রাথমিক শিক্ষা (পিইসি) ও ইবতেদায়ি শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষায় পাসের হার যথাক্রমে ৯৭ দশমিক ৫৯ শতাংশ ও ৯৭ দশমিক ৬৯ শতাংশ। দুই পরীক্ষা মিলিয়ে পাসের হার ৯৭ দশমিক ৬০ শতাংশ।

সোমবার সকাল ১০টার পর গণভবনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে এ ফলাফলের অনুলিপি তুলে দেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ এবং প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রী মোস্তাফিজুর রহমান। এ সময় সকল বোর্ডের চেয়ারম্যানরা উপস্থিত ছিলেন।

এরপর ফলাফল তুলে ধরা হয়। এবার জেএসসি-জেডিসিতে মোট ২৫ লাখ ৯৯ হাজার ১৬৯ জন শিক্ষার্থী অংশ নিয়েছে। এদের মধ্যে মোট পাস করেছে ২২ লাখ ৩০ হাজার ৮২৯ জন, যা গড় হিসেবে ৮৫ দশমিক ৮৩ শতাংশ। এর মধ্যে জিপিএ ফাইভ পেয়েছে ৬৮ হাজার ৯৫ জন।

জেএসসি পরীক্ষায় এবার মোট অংশ নিয়েছে ২২ লাখ ১৬ হাজার ৯৬১ জন, এদের মধ্যে মোট পাস করেছে ২১ লাখ ৩ হাজার ৭৬৩ জন, যা গড় হিসেবে ৮৫ দশমিক ২৮ শতাংশ। জেডিসি পরীক্ষায় এবার মোট অংশ নিয়েছে ৩ লাখ ৮২ হাজার ২০৮ জন, যাদের মধ্যে মোট পাস করেছে ৩ লাখ ৪০ হাজার ৩১১ জন, যা গড় হিসেবে ৮৯ দশমিক ০৪ শতাংশ।

এবার পিইসি ও ইবতেদায়ি পরীক্ষায় মোট ২৯ লাখ ২৭ হাজার ৮০৮ জন শিক্ষার্থী অংশ নেয়। এদের মধ্যে পাস করেছে ২৮ লাখ ৫৭ হাজার ৪৬১ জন, যা গড় হিসেবে ৯৭ দশমিক ৬০ শতাংশ।

পিইসি পরীক্ষার অংশ নেয় ২৬ লাখ ৫২ হাজার ৮৯৬ জন, এদের মধ্যে মোট পাস করে ২৫ লাখ ৮৮ হাজার ৯০৪ জন, যা গড় হিসেবে ৯৭ দশমিক ৫৯ শতাংশ। ইবতেদায়ি পরীক্ষায় অংশ নেয় ২ লাখ ৭৪ হাজার ৯০৭ জন, এদের মধ্যে পাস করে ২ লাখ ৬৮ হাজার ৫৫৭ জন, যা গড় হিসেবে ৯৭ দশমিক ৬৯ শতাংশ।