ইকুয়েডরে ভূমিকম্পে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ২৭২

ইকুয়েডরে ভূমিকম্পে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ২৭২

ইকুয়েডরে ভূমিকম্পে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ২৭২
ইকুয়েডরে ভূমিকম্পে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ২৭২

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: ইকুয়েডরে শক্তিশালী ভূমিকম্পে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ২৭২ জনে দাঁড়িয়েছে। বিবিসি অনলাইনের এক খবরে সোমবার এ তথ্য জানানো হয়েছে।

তবে এ সংখ্যা আরো বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা প্রকাশ করেছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট রাফায়েল কোরেয়া।

ধ্বংসস্তূপের নিচে জীবিত কেউ আটকা পড়ে আছে কি না, তা সন্ধান চালাচ্ছে উদ্ধারকর্মী ও স্থানীয় জনতা। স্থানীয়রা খালি হাতেই উদ্ধার চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। তবে সরকারিভাবে ১০ হাজার সেনা, ৩ হাজার ৫০০ পুলিশ সদস্য উদ্ধারাভিযানে মোতায়েন করা হয়েছে।

শনিবার সন্ধ্যায় ইকুয়েডরে ৭ দশমিক ৮ মাত্রার ভূমিকম্প হয়। এর কয়েক মিনিট আগে ৪.৬ মাত্রার একটি ভূমিকম্প হয়। এ ভূমিকম্পে ২৭২ জনের প্রাণহানির পাশাপাশি আহত হয়েছে ২ হাজার লোক। এর মধ্যে অনেকের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

প্রেসিডেন্ট কোরেয়া জানিয়েছেন, ধ্বংসস্তূপের নিচে এখনো জীবনের সন্ধান পাওয়া যাচ্ছে। তাদের উদ্ধার করাই আমাদের প্রধান কাজ। উদ্ধার কাজ পুরোদমে চলছে বলে জানান তিনি।

ইতালি সফর সংক্ষেপ করে তড়িঘড়ি করে দেশে ফিরে প্রেসিডেন্ট কোরেয়া কয়েকটি ক্ষতিগ্রস্ত এলাকা পরিদর্শন করেছেন। এসময় তিনি বলেন, যেহেতু আমরা এখনো ধ্বংসস্তূপ সরানোর কাজ করছি, সেহেতু সেখান থেকে আরো মৃত মানুষের সন্ধান পাওয়া যেতে পারে।

ইকুয়েডরে গত কয়েক দশকে শনিবার রাতের ভূমিকম্পই ছিল সবচেয়ে বিপর্যয়কর। ১৯৭৯ সালের পর ৭ দশমিক ৮ মাত্রার এ ভূমিকম্পই ছিল দেশটির সবচেয়ে বড় ভূমিকম্প।